দাদু বাপ্পি লাহিড়ীর পথেই হাঁটছেন নাতি রেগো – শেয়ার বিজ


শোবিজ ডেস্ক: ভারতের কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী বাপ্পি লাহিড়ী। আশির দশকে বলিউড গানে ভিন্ন মাত্রা যোগ করেছিলেন তিনি। বাংলা, হিন্দি, উর্দু, তামিল, তেলেগু, পাঞ্জাবি, আসামি, বিহারী, ইংরেজিসহ নানান ভাষায় হাজার হাজার গান করেছেন এই সুপারস্টার। তবে গানের বাইরে অভিজাত সাজসজ্জার জন্য বাপ্পি লাহিড়ীর আলাদা পরিচিতি রয়েছে। কোটি মানুষের প্রিয় এই শিল্পীকে সবসময় দেখা যায় সোনার অলঙ্কারে সজ্জিত। এবার তার পথেই হাঁটলেন নাতি রেগো।
গলায় সোনার হার, চোখে চশমা। গান গাওয়ার আদবকেতায় দারুণ মিল। একেবারে যেন বাপ্পি লাহিড়ী। এত ছোট বয়সেই দাদুর পথকে অনুসরণ করছে। আর করবেই না কেন, কিংবদন্তি দাদুর যোগ্য উত্তরসূরি বলে কথা।

সারেগামাপা থেকে এবার পূজায় মুক্তি পেয়েছে বাপ্পি লাহিড়ীর নাতি রেগোর প্রথম অ্যালবাম ‘বাচ্চা পার্টি’। প্রথম গানেই রেগো বুঝিয়ে দিয়েছে, সে খুব শিগগিরই স্টার হতে চলেছে! নেটিজেনরা ইতোমধ্যেই রেগোর গানের প্রশংসা করছে। সবার মুখে একটাই কথা, রেগো যেন একেবারেই দাদু বাপ্পি লাহিড়ীর মতো!

এ প্রসঙ্গে বাপ্পি লাহিড়ী ভারতীয় গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আমার নাতি যে এত অল্প বয়সে মিউজিকে কেরিয়ার শুরু করল, এতে আমি দারুণ খুশি এবং গর্বিত। বাচ্চা পার্টি এমন একটা গান, যা ওর স্টাইল বা ব্যক্তিত্বের সঙ্গে মানানসই।’

১৯৮৭ সালে সারেগামাপা থেকে রিলিজ হয় বাপ্পি লাহিড়ীর মেয়ে রিমার প্রথম অ্যালবাম ‘লিটিল স্টার’। এ বার তার ছেলে রেগোর সংগীত সফরও শুরু হল সেই একই জায়গা থেকে।

উল্লেখ্য, ‘জিমি জিমি’, ‘ডিসকো ড্যান্সার’সহ অসংখ্য জনপ্রিয় গানের শিল্পী বাপ্পি লাহিড়ী। এক বছরে ৩৩ সিনেমায় ১৮০টি গান করে গিনেস বুকে নাম লিখিয়েছেন তিনি। দীর্ঘ সংগীত ক্যারিয়ারে পেয়েছেন অসংখ্য সম্মাননা ও পুরস্কার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *