বহুল ব্যবহৃত নকল ওষুধ বিক্রি করছিল চক্রটি


রাজধানীর বাবু বাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি)। তারা হলেন – ফয়সাল আহমেদ (৩২), সুমন চন্দ্র মল্লিক (২৭) ও মো. লিটন গাজী (৩২)। গ্রেপ্তারকৃতরা দেশি-বিদেশি নামিদামি ব্র্যান্ডের বহুল ব্যবহৃত নকল ওষুধ ও ক্রীম বিক্রি করছিল। ডিএমপি গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) লালবাগ বিভাগের একটি দল শনিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে।

অতিরিক্ত উপকমিশনার (এডিসি) মো. সাইফুর রহমান আজাদ ভোরের কাগজকে বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, কোতয়ালি থানাধীন বাবুবাজার সুরেশ্বরী মেডিসিন প্লাজার নিচতলার মেডিসিন ওয়ার্ল্ড ও অলোকনাথ ড্রাগ হাউস এবং পার্শ্ববর্তী হাজি রানি মেডিসিন মার্কেটের নিচতলায় রাফসান ফার্মেসিতে শনিবার গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে অভিযান চালানো হয়। এ সময় ফার্মেসি থেকে বিপুল পরিমাণ নকল আই-পিল, সুপার গোল্ড কস্তুরি, ন্যাপ্রোক্সেন প্লাস-৫০০, বেটনোভেট-সি, প্রটোবিট-২০, ইনো, সেনেগ্রা-১০০, প্রিয়াকটিন, মুভ, রিং গার্ড, হুইটফিল্ড, নিক্স রাবিং বাম, ভিক্স ও ভিক্স কোল্ড প্লাস ও গ্যাকজিমা উদ্ধার করা হয়।

ঔষধ প্রশাসন কর্তৃপক্ষের এটিএম কিবরিয়া খান ও মো. মওদুদ আহমেদ অভিযানে উপস্থিত ছিলেন।

নকল ওষুধ ও ক্রিমসিহ গ্রেপ্তার তিনজন। ছবি: ভোরের কাগজ

অতিরিক্ত উপকমিশনার (এডিসি) আরো বলেন, কোতয়ালি থানাধীন বাবুবাজার সুরেশ্বরী মেডিসিন প্লাজার নিচতলার মেডিসিন ওয়ার্ল্ড ফর্মেসীর ফয়সাল আহমেদ, লোকনাথ ড্রাগ হাউসের সুমন চন্দ্র মল্লিকও পার্শ্ববর্তী হাজি রানি মেডিসিন মার্কেটের নিচতলায় রাফসান ফার্মেসীর মালিক মো. লিটন গাজী বেশি লাভের আশায় অনেকদিন ধরেই এসব দেশি ও বিদেশি নামিদামি ব্র্যান্ডের ওষুধ ও ক্রিম পলাতক আসামীদের কাছ থেকে সংগ্রহ করে মিডফোর্ড এলাকায় বাজারজাত করে আসছিল।

এডিসি মো. সাইফুর রহমান আজাদ বলেন, এসব ফার্মেসির মালিকরা বহুল ব্যবহৃত নকল এসব ওষুধ একটি চক্রের কাছ থেকে স্বল্পমূল্যে কিনে বিক্রি করছিল। এর ফলে এসব ওষুধ ও ক্রিম ব্যবহার করে মারাত্মক স্বাস্থ্য ঝুঁকির মধ্যে পড়ছিল ব্যবহারকারীরা। তাদের ওষুধ সরবরাহকারীদের বিষয়েও কিছু তথ্য মিলেছে। তবে তদন্তের স্বার্থে তাদের নাম বলা সম্ভব হচ্ছে না। এ ঘটনায় কোতোয়ালি থানায় মামলা হয়েছে। যার নম্বর- ২৩। গ্রেপ্তারকৃতদের রিমান্ডে নেয়া হবে। জিজ্ঞাসাবাদের পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে পরবর্তী কাযক্রম চলবে।



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *