তিন সংস্করণে সাকিব-সোহান, টি-টোয়েন্টি নতুন মুখ সোহান – শেয়ার বিজ


ক্রীড়া ডেস্ক: জিম্বাবুয়ে সফরে তিন সংস্করণেই সাকিব আল হাসান রয়েছেন বাংলাদেশ দলে। তার সঙ্গে আছেন নুরুল হাসান সোহান। নতুন মুখ হিসেবে টি-টোয়েন্টিতে জায়গা পেয়েছেন শামীম হোসেন।

এক টেস্ট, তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টির সিরিজ খেলতে আগামী সোমবার রাতে জিম্বাবুয়ে রওনা হওয়ার কথা বাংলাদেশ দলের।

সৌম্য সরকার আছেন কেবল টি-টোয়েন্টি দলে। মোস্তাফিজুর রহমান নেই টেস্ট। নাজমুল হোসেন শান্ত আছেন শুধু টেস্ট দলে।

বাংলাদেশের সব শেষ টেস্ট দলে খেলা মোহাম্মদ মিঠুন এবার বাদ পড়েছেন। সাকিব ও সোহানের পাশাপাশি দলে এসেছেন অফ স্পিনার নাঈম হাসান। সোহান সবশেষ টেস্ট খেলেছেন ২০১৮ সালের ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে। আর ওয়াডেতে তিন খেলেছিলেন ২০১৬ সালের ডিসেম্বরে।

ওয়ানডে দল থেকে সৌম্য সরকারের পাশাপাশি বাদ পড়েছেন অফ স্পিনিং অলরাউন্ডার মেহেদি হাসান। সোহানের সঙ্গে দলে এসেছেন তাইজুল ইসলাম ও রুবেল হোসেন।

বাংলাদেশ সবশেষ টি-টোয়েন্টি খেলেছে নিউ জিল্যান্ড সফরে। ওই সফরে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি স্কোয়াড ছিল একই, ২০ সদস্যের। এবার জিম্বাবুয়ে সফরের টি-টোয়েন্টি দল আলাদা হওয়ায় তাই পরিবর্তন অনেক। ছুটির কারণে ওই সিরিজে না খেলা তামিম ইকবাল ও সাকিব জিম্বাবুয়ে সফরে আছেন অনুমিতভাবেই। ছুটি পেয়ে এবার মুশফিকুর রহিমের না থাকা নিশ্চিত ছিল আগেই।

সবশেষ টি-টোয়েন্টি দল থাকা মোসাদ্দেক হোসেন, নাজমুল হোসেন শান্ত, মোহাম্মদ মিঠুন, আল আমিন হোসেন, হাসান মাহমুদ, মেহেদী হাসান মিরাজ ও রুবেল হোসেনরা এবার নেই।

শামীম ঘরোয়া ক্রিকেটে নজর কেড়েছেন আগ্রাসী ব্যাটিং, আঁটসাঁট বোলিং ও দুর্দান্ত ফিল্ডিং দিয়ে। অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপজয়ী বাংলাদেশ দলের এই সদস্য চলতি ঢাকা লিগে ১০ ইনিংসে ১৮১ রান করেছেন প্রায় দেড়শ স্ট্রাইক রেটে।

সোহান সবশেষ টি-টোয়েন্টি খেলেছেন ২০১৭ সালের জানুয়ারিতে, নিউ জিল্যান্ডে। চলতি ঢাকা লিগে তিনি আছেন দারুণ ফর্মে, ১৩ ইনিংসে ৩৪৬ রান করেছেন ৩৮.৪৪ গড় ও ১৫১.৭৫ স্ট্রাইক রেটে।

আগামী ৭ জুলাই টেস্ট দিয়ে শুরু হবে বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়ে সিরিজ। এরপর তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ শুরু ১৬ জুলাই থেকে। ২৩ জুলাই থেকে টি-টোয়েন্টি সিরিজ। সব ম্যাচই হবে হারারে স্পোর্টস ক্লাব মাঠে।

জিম্বাবুয়ে সফরের দল:

টেস্ট স্কোয়াড: মুমিনুল হক (অধিনায়ক), তামিম ইকবাল, সাদমান ইসলাম, সাইফ হাসান, নাজমুল হোসেন শান্ত, মুশফিকুর রহিম, সাকিব আল হাসান, লিটন কুমার দাস, ইয়াসির আলি চৌধুরি, নুরুল হাসান সোহান, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম, নাঈম হাসান, আবু জায়েদ চৌধুরি, তাসকিন আহমেদ, ইবাদত হোসেন চৌধুরি ও শরিফুল ইসলাম।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *