শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে হাজার রান মুশফিকের


শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আজ শুক্রবার (২৮ মে) তৃতীয় ওয়ানডেতে এক হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করেছেন মিস্টার ডিপেন্ডেবলখ্যাত মুশফিকুর রহিম। দুশমন্থ চামিরার বলে সিঙ্গেল নিয়ে এক হাজার রান পূর্ণ করেন তিনি। এ নিয়ে দুদলের মুখোমুখী দেখায় তৃতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে হাজার রান হল তার। প্রথম দুজন শ্রীলঙ্কার কুমার সাঙ্গাকারা ও সনাথ জয়াসুরিয়া।

লঙ্কার বিপক্ষে আজ ৯৯২ রান নিয়ে খেলতে নেমেছিলেন মুশফিক। ৩ উইকেট হারিয়ে দল যখন চাপে তখন এই রেকর্ডে পৌঁছেন তিনি। ৮ রান করতে ২৫ বল লেগেছে তার। এক হাজার রানের মাইলফলকে পৌঁছতে তার খেলতে হয়েছে ৩৩ ম্যাচ। দুদলের মুখোমুখী দেখায় সবচেয়ে বেশি রান সাঙ্গাকারার। বাংলাদেশের বিপক্ষে ৩১ ওয়ানডেতে ১২০৬ রান করেছেন কিংবদন্তি ব্যাটসম্যান। জয়াসুরিয়া ২২ ম্যাচে করেছেন ১০৩০ রান। আজ মুশফিকের সামনে সুযোগ থাকতে জয়াসুরিয়াকে টপকে যাওয়ার। সে জন্য তাকে আরো করতে হবে ৩০ রান।

লঙ্কার বিপক্ষে চলতি সিরিজে আগের দুটি ম্যাচেই ব্যাট হাতে আলো ছড়িয়েছেন মুশফিক। প্রথম ম্যাচে তার ব্যাটেই বাংলাদেশ ২৫৭ রানের লড়াকু পুঁজি পেয়েছিল। যেখানে মুশফিক একাই করেন ৮৪ রান। ফলস্বরূপ ম্যাচসেরাও হন তিনি। দ্বিতীয় ম্যাচে মুশফিক হাঁকান ওয়ানডে ক্যারিয়ারের অষ্টম সেঞ্চুরি। ১২৭ বলে শেষ পর্যন্ত তার ব্যাট থেকে এসেছিল ১২৫ রান। আজ মুশি হাফসেঞ্চুরি করতে পারলে একটি রেকর্ডে সাঙ্গাকারার পাশে বসবেন। সাঙ্গাকারা বাংলাদেশের বিপক্ষে হাফসেঞ্চুরি পেয়েছেন ৬ বার। মুশফিক শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে অর্ধশত রান করেছেন পাঁচবার।

এই সিরিজের আগে ওয়ানডেতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মুশফিকের রান ছিল ৭৮৩। আগের দুই ম্যাচে ২০৯ রান করায় হাজারি ক্লাব থেকে আর মাত্র ৮ রান দূরে ছিলেন তিনি। আজ তাও পূর্ণ করলেন বাংলাদেশ উইকেটকিপার। মুশফিক এখন ৩৩ ম্যাচ খেলে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সবচেয়ে বেশি ওয়ানডে খেলা ক্রিকেটারও। এই তালিকায় থাকা কুমার সাঙ্গাকারা ৩১টি ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ২৯টি ম্যাচ খেলেছেন। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এক সিরিজে সবচেয়ে বেশি ডিসমিসাল পাওয়া কিপারও মুশফিক। ২০০৭ সালে তিন ম্যাচের সিরিজে ৬ ডিসমিসাল পেয়েছিলেন তিনি।

একই সিরিজে কুমার সাঙ্গাকারাও ৬টি ডিসমিসাল পান। দুইবার পাঁচটি করে ডিসমিসাল নেয়ার রেকর্ডও আছে সাবেক লঙ্কান ক্রিকেটারের নামের পাশে। এই সিরিজে অবম্য এখনো কোনো ডিসমিসাল পাননি মুশফিক। দুইবার ডিসমিসাল পেয়েছেন শ্রীলঙ্কার কুশাল পেরেরা। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মুশফিক এখন পর্যন্ত সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন দুইবার। সিংহলিজদের বিপক্ষে মুশফিক শূন্য রানে আউট হয়েছেন তিনবার। তাদের মোকাবেলায় ৬৭টি চার ও ১৩টি ছয়ও মেরেছেন তিনি।

এসআর



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *